যশের জীবন জুড়ে শুধুই নুসরত, বাধ্য হয়ে যশের বাড়ি ছাড়লেন বান্ধবী!

এখন আর কোনও রকম লুকোচুরি নয়। ‘যশরত’-এর প্রেম এখন ওপেন সিক্রেট। নিখিল জৈন এখন অভিনেত্রী নুসরতের জীবনের অতীত অধ্যায়, আর নায়িকার মন জুড়ে রয়েছেন শুধু যশ দাশগুপ্ত। অন্যদিকে বালিগঞ্জের আবাসনে এখন ছোট নবজাতক ঈশান আর নুসরতের দেখভাল করতে ব্যস্ত যশ। দু-দিন আগেই এক স্যাঁলোর প্রমোশ্যানাল ইভেন্টে হাজির হয়ে নুসরত। আর সেদিন সাংবাদিক সম্মেলনে হাজির হয়ে বলেছেন, ‘বাবা জানেন বাবা কে, আমারা খুব ভালো সময় কাটাচ্ছি বাবা-মা হিসাবে। যশ এবং আমার দারুণ সময় কাটছে’। আর এই কথার পর আর কোনো লুকোচুরি নেই।

বছরের প্রথম থেকে টলিউডের যশ-নুসরত-নিখিলের ত্রিকোণ কাহিনি বেশ চর্চায় থাকেন। এতদিন কিছুটা হলেও আলোচনার বাইরে থেকেছেন যশ দাশগুপ্তর এক সময়ের ঘনিষ্ঠ বান্ধবী তথা মাসকয়েক আগে থাকা তাঁর ছায়াসঙ্গী, পুনম ঝা। সম্প্রতি ইনস্টাগ্রামে পুনম নিজের একটি সাদা-কালো ছবি পোস্ট করেন। তবে এই ছবির ক্যপাশান এক ইঙ্গিতপূর্ণ বার্তা দেয়। তিনি ক্যপাশানে লিখেছেন, ‘রঙিন ছবি যেমন বর্ণনা করতে পারে, তেমনই সাদা-কালো ছবি অনেক অন্য রকম কথা বলে’। এই লেখাটি ছোট হলেও এর অর্থটি বেশ বড়।

নিজের ব্যক্তিগত জীবনকে সর্বদা লাইমলাইটের বাইরে রেখেছেন যশ দাশগুপ্ত। তবে শোনা যায়, যশের ডাইমন্ড সিটির আবাসনে পুনম নিজের বাবা-মা এবং আগের পক্ষের ছেলেকে নিয়ে থাকতেন। যশের অভিনয়ের কেরিয়ার নিজের হাতে তৈরী করেছিলেন পুনম, এমনটাই গুঞ্জন টলিপাড়াতে। যশের কেরিয়ার শুরু হিন্দি টেলিইন্ড্রাস্টিতে ধারাবাহিকের পার্শ্ব চরিত্র দিয়ে। এরপর বাংলা টেলিইন্ড্রাস্টিতে পা রাখেন যশ। প্রথম ধারাবাহিকে বিপুল জনপ্রিয়তা পান। এরপর এই ধারাবাহিকের গণ্ডি পেরিয়ে রুপোলি পর্দায় দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেন। আর অভিনেতার পুরো জার্নিতে অভিনেতার ছায়াসঙ্গী ছিলেন পুনম। সেইসময় এক নামী প্রযোজনা সংস্থার এক সময়ের ক্রিয়েটিভ ম্যানেজার ছিলেন পুনম।

শুধু যশের অভিনয়ের স্ট্রাগেলে পুনম থাকেননি৷ চলতি বছরের শুরুতে যশ রাজনীতির দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন। সেই সময়েও যশের সবসময় সঙ্গে ছিলেন পুনম। কিন্তু ইন্ডাস্ট্রিতে কানাঘুষো শোনা যাচ্ছে, যশের একসময় সব ভালো সময়ের দায়িত্ব নেওয়া পুনম এখন যশের বাড়ি ছেড়ে দিয়েছেন। নিজেদের সম্পর্ক নিয়ে কোনওদিন প্রকাশ্যে সরাসরি কথা বলেননি। কিন্তু একে অপরের পাশে ছিলেন দুজনে।

এখন প্রশ্ন উঠছে এই দুই বন্ধু একে অপরের হাত ছাড়লেন কেন? পাশাপাশি হঠাৎ কেন যশের বাড়ি ছাড়লেন তিনি? ঘনিষ্ঠমহল বলছে, যশের জীবনে নুসরতের আগমনের পর থেকেই নাকি দুই বন্ধুর সম্পর্কে ফাটল শুরু হয়। নুসরতের সাথে ঘনিষ্ঠতা থেকে অভিনেত্রীর মা হওয়া পর্যন্ত নানান ঘটনাতে মন ভেঙেছে পুনমের। এর মাঝে অনেকে মনে করছেন নুসরত যদি এদের বন্ধুত্বের ফাটলের কারণ হয় তাহলে বিধানসভা নির্বাচনী প্রচারের সময় কেন যশের সঙ্গে ছিলেন তিনি?

তখন নুসরত আর যশ নিজেদের প্রেম প্রকাশ্যে না আনলেও ‘যশরত’-এর প্রেম বেশ চর্চায়। সেই সময় শোনা গিয়েছিল, সেই সময়ও নুসরতের সঙ্গে সারাদিন সময় কাটালেও রাতে বাড়ি ফিরতেন যশ। এখন পাকাপাকিভাবেই নুসরতের ছায়াসঙ্গী তিনি। ঈশানের জন্মের পর নাকি নুসরত আর যশ আরো বেশি সময় কাটাচ্ছেন আর তা না মেনে নিতে পারেননি পুনম। তাই যশের বাড়ি ছাড়লেন তিনি। এমনকি যশের প্রতিটি সিনেমা বা রাজনৈতিক ইভেন্টে যেখানে পুনম থাকতেন। তবে সাম্প্রতিক মধুমিতার সঙ্গে গান লঞ্চের ইভেন্ট বা যশের নতুন ছবি ‘চিনে বাদাম’-এর মহরত, পাশে ছিলেন না পুনম। আর এতেই স্পষ্ট দুজনের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কে চিড় ধরেছে।

About admin

Check Also

বাসা ছাড়তে হবে পরীমনির!

চিত্রনায়িকা পরীমণির জামিনের খবরে সকাল থেকেই বনানীর লেকভিউয়ের ওই বাড়ির সামনে তার অনেক ভক্ত-অনুরাগী ভিড় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Recent Comments

No comments to show.